• রবিবার, ০১ অগাস্ট ২০২১, ০৫:৫৪ পূর্বাহ্ন

হাসপাতালে স্ত্রীর মরদেহ রেখে পালালো স্বামী

ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রতিনিধি / ২১ বার পঠিত
আপডেট টাইম : বৃহস্পতিবার, ২৪ জুন, ২০২১

২৪ জুন ২০২১, আজকের মেঘনা. কম, ডেস্ক রিপোর্টঃ

ব্রাহ্মণবাড়িয়া ২৫০ শয্যাবিশিষ্ট জেনারেল হাসপাতালে রুবিনা আক্তার (৩৫) নামের এক গৃহবধূর মরদেহ রেখে পালিয়ে যাওয়ার অভিযোগ উঠেছে স্বামী মুর্শিদ মিয়ার বিরুদ্ধে। নিহতের স্বজনদের দাবি, রুবিনাকে তার স্বামী মুর্শিদ মিয়া হত্যা করেছেন।

বৃহস্পতিবার (২৪ জুন) দুপুরে ব্রাহ্মণবাড়িয়া ২৫০ শয্যাবিশিষ্ট জেনারেল হাসপাতালের মেডিসিন বিভাগে এ ঘটনা ঘটে।

নিহত রুবিনা উপজেলার শরিফপুর ইউনিয়নের খোলাপাড়া গ্রামের বীর মুক্তিযোদ্ধা সিরাজুল ইসলামের মেয়ে।

জানা যায়, ১৩ বছর আগে উপজেলার আড়াইসিধা ইউনিয়নের আড়াইসিধা গ্রামের ব্যাপারি বাড়ির মৃত রহিম মিয়ার ছেলে মুর্শিদ মিয়ার সঙ্গে রুবিনার বিয়ে হয়। তাদের ১২ বছর ও ১০ বছর বয়সী দুই ছেলে রয়েছে। বিয়ের পর থেকেই তাদের মধ্যে শোবার ঘর নিয়ে প্রায়ই ঝগড়া হতো। এ নিয়ে বাড়ির অন্যদের সঙ্গেও কথা-কাটাকাটি হতো।

এরই জের ধরে অভিমান করে রুবিনা পোকা মারার ট্যাবলেট খেয়ে আত্মহত্যার চেষ্টা করেন। দুপুরে ব্রাহ্মণবাড়িয়া ২৫০ শয্যাবিশিষ্ট জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে আসলে রুবিনা মারা যান। তখন মরদেহ রেখে পালিয়ে যান স্বামী মুর্শিদ মিয়াসহ পরিবারের সদস্যরা।

রুবিনাকে হত্যা করা হয়েছে দাবি করেন তার মা হেলেনা বেগম। তিনি বলেন, ১০ বছর পর মুর্শিদ দেশে আসেন। এসেই ছোটখাটো বিষয় নিয়ে রুবিনাকে অত্যাচার করতেন। মৃত্যুর পর এখন পর্যন্ত কেউ তাদের খোঁজ নেয়নি।

আশুগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) জাবেদ মাহমুদ জানান, মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য হাসপাতালের মর্গে রাখা হয়েছে। ঘটনার তদন্তে চলছে।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো খবর..

পুরাতন সংবাদ

সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
 
১০১১১২১৩
১৪১৫১৬১৭১৮১৯২০
২১২২২৩২৪২৫২৬২৭
২৮২৯৩০